প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আমার জন্য মায়ের মমতা দেখিয়েছেন: কাদের

অথর
নিজস্ব প্রতিবেদক   বাংলাদেশ
প্রকাশিত :১৫ মে ২০১৯, ২:৪৯ অপরাহ্ণ | নিউজটি পড়া হয়েছে : 19 বার
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আমার জন্য মায়ের মমতা দেখিয়েছেন: কাদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আমার জন্য মায়ের মমতা দেখিয়েছেন: কাদের

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ‘মহান আল্লাহর অশেষ রহমতে দলীয় নেতা-কর্মী ও দেশবাসীর দোয়ায় আমি সুস্থ্য হয়ে দেশে ফিরেছি।’ বুধবার বিকেলে দেশে ফিরে রাজধানীর হযরত শাহ জালাল (র.) আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের ভিভিআইপি লাউঞ্জে সাংবাদিকদের সঙ্গে প্রথম প্রতিক্রিয়ায় তিনি এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘আমার জন্য প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা মায়ের মমতা দেখিয়েছেন। সন্তানের জন্য যা যা করতে হয় তিনি তাই আমার জন্য করেছেন। বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনাকে কৃতজ্ঞতা জানানোর ভাষা আমার জানা নেই। তবুও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে আমি অশেষ কৃতজ্ঞতা ও ধন্যবাদ জানাই।’

তিনি আরও বলেন, ‘দুই মাস ১১ দিন পর আমি সুস্থ্য হয়ে সিঙ্গাপুর থেকে দেশে ফিরেছি। আমার জীবনটা চরম অনিশ্চয়তার মধ্যে ছিল। আমি বাঁচব কি বাঁচব না, জীবন মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে ছিলাম আমি। আমি যখন অসুস্থ্য হয়ে মৃত্যু পথযাত্রী ছিলাম, তখন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আমাকে নাম ধরে ডেকেছেন। আমি তখন চোখ খুলে তাকিয়েছিলাম। জীবন হলো পানির স্রোতের মতো। আমি এই শিক্ষা গ্রহণ করেছি।’

‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছ থেকে যে শিক্ষা পেয়েছি, সে শিক্ষাকে কাজে লাগিয়ে দেশের মানুষের জন্য আমৃত্যু কাজ করে যাব’, উল্লেখ করে সড়ক পরিবহনমন্ত্রী বলেন, ‘মানুষের দোয়া আল্লাহ কবুল করেছেন। আমি আপনাদের সঙ্গে আছি। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে টিম ওয়ার্ক করে যাব। দেশের উন্নয়নের জন্য কাজ করব। দেশকে সামনের দিকে এগিয়ে নিয়ে যাব। দীর্ঘদিন সিঙ্গাপুরে চিকিৎসার জন্য বাইরে থাকার পরও দলের কেন্দ্রীয় নেতারা টিম ওয়ার্ক করেছিল। সেজন্য আমি তাদেরকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি।’

ওবায়দুল কাদের সন্ধ্যা ৬ টা ৩০ মিনিটে বিমানবন্দর থেকে ধানমন্ডির নিজ বাসার উদ্দেশ্যে রওনা হন। এ সময় তিনি বিমান বন্দরে অপেক্ষমাণ দলীয় নেতা-কর্মী, শুভান্যুধায়ীদের প্রতি হাত নেড়ে অভিবাদন জানান।

সংবাদটি শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

শেয়ার করে  সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়।


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

11 + 13 =