তরুণ ক্রিকেটার সজিব আত্মহত্যা | bangla.bdnews24.com

তার পরিবারের সদস্যরা জানিয়েছেন, শনিবার সন্ধ্যায় একপর্যায়ে রাজশাহীর দুর্গাপুরে নিজ বাড়িতে পাখির সাথে ঝুলন্ত অবস্থায় তিনি ‘আত্মহত্যা’ করেছিলেন।

সজিবের স্বজনদের দাবি, আসন্ন বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপে সুযোগ না পেয়ে হতাশার কারণে তিনি আত্মহত্যা করেছেন।

সজিবের চাচাতো ভাই মুফাদ্দাল হুসেন জানান, শনিবার সন্ধ্যায় সজিব বেডরুমে গলায় দড়ি বেঁধে আত্মহত্যা করে। পরদিন সকালে বাড়ি থেকে কোনও সাড়া না পেয়ে বাড়ির লোকজন তাকে জানালার অভ্যন্তর থেকে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখেন। তারপরে পুলিশকে অবহিত করা হয়।

দুর্গাপুর থানার ওসি হাসমত আলী জানান, রবিবার দুপুরে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে সজিবের ঝুলন্ত লাশ দেখতে পায়। পরিবারের পক্ষ থেকে কোনও আপত্তি না থাকায় লাশ দাফনের অনুমতি দেওয়া হয়েছিল। এ বিষয়ে ইউডি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

সজিবের বড় ভাই তশিকুল ইসলাম জানান, ছোটবেলা থেকেই সজীবের ক্রিকেট খেলায় খুব আগ্রহ ছিল। এ কারণে পরিবারকে প্রচুর গসিপ খেতে হয়েছিল।

প্রশিক্ষণের জন্য রাজশাহীর কাটাখালীর “বাংলা ট্র্যাক” নামে ক্রিকেট একাডেমিতে তাকে গ্রহণ করা হয়েছিল। খালেদ মাহমুদ সুজন একাডেমির সিইও এবং অধ্যক্ষ প্রশিক্ষক।

খালেদ মাহমুদ সুজন বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “আমি বিশ্বাস করতে পারি না যে সজিবের মতো শালীন এবং মেধাবী ছেলেটি এরকম কিছু করতে পারে। খবরটি শুনে আমি খুব মন খারাপ হয়েছিল। তিনি ওপেনার এবং মধ্যমণি ছিলেন। আমি শিনবুকুরের সাথে প্রথম শ্রেণি খেললাম। বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি খেলোয়াড়ের খসড়ায় তাঁর নাম ছিল না। এজন্য সজিব আত্মহত্যা করবে – আমি অবাক হয়েছি আমিও তাই ভাবি। “

সজিবুল ইসলাম রাজশাহীর দুর্গাপুর উপজেলার luালকা গ্রামের মুর্শিদ আলীর ছেলে। তিনি অনূর্ধ্ব -১,, ১৮ এবং ১৯ দল খেলেছেন, তিনি ২০১ 2016 সালে ফিফা অনূর্ধ্ব -১। বিশ্বকাপের স্কোয়াডের ব্যাকআপ সদস্য ছিলেন। উনিশ জাতীয় দলের সদস্য হয়ে তিনি শ্রীলঙ্কা সফর করেছিলেন। অতি সম্প্রতি সজিব বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপে খেলার প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন। তবে খেলোয়াড়ের খসড়ায় তাদের নাম না থাকায় কোনও দল পাওয়ার সম্ভাবনা ছিল না।

READ  সোমফনিউজ.টিভি, আশরাফ একদিনের জন্য জাতীয় দলে ফিরতে চায়

Written By
More from Arzu Ashik

করোনায় 24 ঘন্টার মধ্যে একটি মৃত্যু ছাড়াই 6 বিভাগ

১ বাংলাদেশ ৩, ৯৪, ৫,৭৪৭ ৩, ১০, ২ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ৮৬, ৬৪,...
Read More

প্ৰত্যুত্তৰ দিয়ক

আপোনৰ ইমেইল ঠিকনা প্ৰকাশ কৰা নহ'ব । প্ৰয়োজনীয় ক্ষেত্ৰসমূহত *এৰে চিন দিয়া হৈছে